বিবেকের কাছে জবাবদিহিতা না থাকলে কোন বাধ্যবাধকতাই কাজে আসে না

প্রকাশঃ ১০:১৮ মিঃ, জুন ১৬, ২০১৯
Card image cap

ডাক ও  টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী জনাব মোস্তাফা জব্বার বলেছেন, মানুষের প্রথম বিচারক হচ্ছে তার বিবেক।

টেকওয়ার্ল্ড প্রতিনিধি:

ডাক ও  টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী জনাব মোস্তাফা জব্বার বলেছেন, মানুষের প্রথম বিচারক হচ্ছে তার বিবেক। একজন মানুষ যদি তার নিজেকে নিজের কাছে সৎ বলে দাবি করতে না পারে তাহলে সে মানসিকভাবে সুখি হতে পারে না। বিবেকের কাছে যথাযথ জবাবদিহি করতে না পারলে কোন বাধ্যবাধকতাই কাজে আসে না উল্লেখ করেন মন্ত্রী।

মন্ত্রী আজ বাংলাদেশ সচিবালয়ে ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের সম্মেলন কক্ষে ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের সকল ক্ষেত্রে  শুদ্ধাচার বাস্তবায়ন শীর্ষক  কর্মশালার সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এসব কথা বলেন।

মন্ত্রী বাস্তব জীবনে একজন সৎ এবং অসৎ মানুষের জীবনের চিত্র তুলে ধরে বলেন, আমরা যারা সরকারি টাকায় জীবন যাপন করি, মনে রাখতে হবে সাধারণ মানুষের টাকায় আমাদের শরীরের প্রতিটি কোষ তৈরি হচ্ছে। তাদের ঠকানোর পথ থেকে  সরে আসতে পারলে মানসিক সুখ পাওয়া যাবে, যে সুখ পৃথিবীর কোন সম্পদ দিয়ে অর্জন করা সম্ভব নয়। তিনি বলেন, আমাদের দেশটি সীমিত সম্পদের দেশ। জনগণের সম্পদ জনগণের কল্যাণে কাজ করার বিকল্প নেই। নৈতিকতা প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে অগ্রগতির অগ্রযাত্রাকে আরও বেগবান করতে হবে।

ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের সচিব অশোক কুমার বিশ্বাস অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন। অুনুষ্ঠানে ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগ ও এর অধীন সকল সংস্থা ও অধিদপ্তর ও প্রতিষ্ঠানের শীর্ষ কর্মকর্তাগণ অংশগ্রহণ করেন।

এর আগে সকালে মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ  শফিউল আলম ঢাকায় ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের সম্মেলন কক্ষে ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের সকল ক্ষেত্রে  শুদ্ধাচার বাস্তবায়ন শীর্ষক দিনব্যাপি  কর্মশালার উদ্বোধন  করেন।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি বলেন নৈতিকতা অনুসরণ করলে সমাজ এগিয়ে যাবে। আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে আমরা বহুদুর এগিয়েছি। নৈতিকতা প্রতিষ্ঠিত করতে শুদ্ধাচারের পক্ষে জনমত তৈরি করার প্রয়োজনীয়তার ওপর তিনি গুরুত্বারোপ করেন।


সংবাদটি পঠিত হয়েছেঃ ৪৪ বার